• ঢাকা
  • |
  • বৃহঃস্পতিবার ১৭ই অগ্রহায়ণ ১৪২৯ রাত ১১:৩০:০৪ (01-Dec-2022)
  • - ৩৩° সে:

আমাকে জড়িয়ে নানা ধরনের কুৎসা রটানোর চেষ্টা হচ্ছে: মীম


বৃহঃস্পতিবার ১০ই নভেম্বর ২০২২ বিকাল ০৫:৫৮



আমাকে জড়িয়ে নানা ধরনের কুৎসা রটানোর চেষ্টা হচ্ছে: মীম

ছবি সংগৃহীত

‘আমার পথচলায় ঈর্ষান্বিত হয়ে, আমাকে থামিয়ে দিতে, আমাকে জড়িয়ে নানা ধরনের কুৎসা রটানোর চেষ্টা চালাচ্ছে’- এমনই অভিযোগ করেছেন চিত্রনায়িকা বিদ্যা সিনহা মীম।

বুধবার রাত সোয়া ২টার দিকে স্বামী চিত্রনায়ক শরিফুল রাজ, বিদ্যা সিনহা মীম ও পরিচালক রায়হান রাফির ওপর ক্ষোভ প্রকাশ করে ইঙ্গিতপূর্ণ পোস্ট দেন পরীমণি।

যেখানে মীমের বিরুদ্ধে বিয়েবহির্ভূত সম্পর্কের অভিযোগ এনেছেন এবং পরিচালক রায়হান রাফিকে দালাল হিসেবে তকমা দিয়েছেন। একইসঙ্গে নিজের স্বামীর উদ্দেশে সতর্ক বাণী দিয়েছেন পরী।

সেই পোস্টে শুরুতেই রায়হান রাফিকে ট্যাগ করে পরী লেখেন, সিনেমার সঙ্গে সঙ্গে দালালিটাও ভালো করেন দেখি!’

এরপর মীমকে ট্যাগ করে পরী লেখেন, ‘নিজের জামাইকে নিয়ে সন্তুষ্ট থাকা উচিত ছিল। ’

একইভাবে নিজের স্বামী রাজকে ট্যাগ করে এই চিত্রনায়িকা লেখেন, ‘এটা এতদূর গড়াতে দেওয়া উচিত হয়নি তোমার। ’

প্রতিক্রিয়ায় পরীমণির বিরুদ্ধে মামলা ও যেসব অনলাইন পোর্টাল ও ইউটিউব চ্যানেল মিথ্যে খবর ছড়াবে তাদের বিরুদ্ধেও মামলা করবেন বলে জানান মীম।

মীম অভিযোগ করে বলেন, ‘পরাণ ও দামাল সিনেমার আকাশছোঁয়া সাফল্য আমাকে স্বার্থহীন ভালোবাসায় ভাসাচ্ছে। আমি আপ্লুত, অভিভূত। বলতে পারি, জীবনের সেরা সময় পার করছি। ঠিক এই সময়ে একটা পক্ষ আমার পথচলায় ঈর্ষান্বিত হয়ে, আমাকে থামিয়ে দিতে, আমাকে জড়িয়ে নানা ধরনের কুৎসা রটানোর চেষ্টা চালাচ্ছে। ’

নিজের অবস্থান ব্যাখা করে এই নায়িকা বলেন, ‌‘পরাণ ও দামাল যে ভালোবাসা আমাকে দিচ্ছে, দেড় দশক আগে ঠিক একইরকম ভালোবাসায় সবাই আমাকে লাক্স চ্যানেল আই সুপারস্টার বানিয়েছে। সবার ভালোবাসাকে গুরু দায়িত্ব হিসেবে মেনে নিয়ে আমি আমার পেশাদার অভিনয়জীবন গড়ে তোলা চেষ্টা করে যাচ্ছি, আগামীতেও করে যাব। আমি কাজ করছি বাংলাদেশে জাতিসংঘের আন্তর্জাতিক শিশু তহবিলের (ইউনিসেফ) জাতীয় শুভেচ্ছাদূত হিসেবে। ’

যেসব খবর ছড়াচ্ছে সেসব প্রমাণ ছাড়াই ছড়ানো হচ্ছে উল্লেখ করে লাক্স তারকা বলেন, ‘শিক্ষক বাবার আদর্শ ও মায়ের শেখানো সততাকে সঙ্গী করে দারুণ কিছু কাজ করার চেষ্টার মধ্য দিয়ে ভক্ত-শুভাকাঙ্ক্ষীসহ সবার মন জয়ের চেষ্টা করছি প্রতিনিয়ত। কখনোই নিজের পেশাদার জীবনের সঙ্গে এমন কিছু যুক্ত করতে দেইনি যা আমার পথচলাকে প্রশ্নবিদ্ধ করতে পারে। আমি জানি আমার পারিবারিক শিক্ষা ও মূল্যবোধ কী, বেড়ে ওঠেছি কোন ধরনের পারিবারিক আবহে, আমার চারপাশটা কেমন- এখন যে বা যারা কোনো ধরণের প্রমাণ ছাড়াই আমাকে নিয়ে ভিত্তিহীন কথা বলছে, তাদের প্রতি নিন্দা জানানোর ভাষা জানা নেই। ’

বাড়াবাড়ি হলে পরীমণির বিরুদ্ধে মামলা করার ইঙ্গিত দিয়েছেন মীম। তিনি বলেন, ‘তবে এসবের বাড়াবাড়ি হলে আমি অবশ্যই তাদের বিরুদ্ধে দেশের প্রচলিত আইনে ব্যবস্থা গ্রহণ করব। ভক্ত-শুভাকাঙ্ক্ষী ও ভালোবাসার মানুষদের এটাও বলতে চাই, কারও কোনো ধরণের মনগড়া মিথ্যা বানোয়াট কথায় আপনারা বিভ্রান্ত হবেন না। ’

গণমাধ্যমের সহায়তা চেয়ে মীম বলেন, ‘আমার এই দীর্ঘ পথচলায় সংবাদকর্মী ভাইয়েরা সবসময় আন্তরিক সহযোগিতা করেছেন। আপনারাই আমার যাবতীয় কাজ, ভাবনা-চিন্তা সঠিক ও সুন্দরভাবে ভক্ত-শুভাকাঙ্ক্ষী দেশ-বিদেশের সবার কাছে তুলে ধরেছেন। তাই আপনাদের সবার কাছে অনুরোধ, কোনো ধরনের সত্যতা যাচাই বাছাই না করে বিভ্রান্তিকর কোনো খবর ছড়াবেন না। ’

মিথ্যে খবর ছড়ালে অনলাইন পোর্টাল ইউটিউব চ্যানেলের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেবেন জানিয়ে মীম বলেন, ‘কোনো ইউটিউব কিংবা পোর্টাল যদি আমাকে জড়িয়ে কোনো ধরনের ভিত্তিহীন খবর ছড়ানোর চেষ্টা করে তাহলে সংশ্লিষ্ট সবার বিরুদ্ধেও প্রচলিত আইনে ব্যবস্থা নিতে বাধ্য হতে হবো। ’

মন্তব্য করুনঃ


সর্বশেষ সংবাদ