• ঢাকা
  • |
  • সোমবার ১০ই আষাঢ় ১৪৩১ সকাল ০৯:৩০:১৫ (24-Jun-2024)
  • - ৩৩° সে:

উপজেলা নির্বাচনের দ্বিতীয় ধাপে চেয়ারম্যান হলেন যারা


বুধবার ২২শে মে ২০২৪ সকাল ১১:৩০



উপজেলা নির্বাচনের দ্বিতীয় ধাপে চেয়ারম্যান হলেন যারা

ছবি: সংগৃহীত

চ্যানেল এস ডেস্ক: 

ষষ্ঠ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের দ্বিতীয় ধাপে ১৫৬টি উপজেলায় ভোটগ্রহণ শেষ হয়েছে গতকাল মঙ্গলবার। তবে বরাবরের মতো এ নির্বাচনেও নির্বাচন কমিশনের (ইসি) অস্বস্তির কারণ ছিল ভোট কম পড়া। ভোটাররা অনুপস্থিত থাকায় অনেক জায়গায় দিনভর অলস সময় কাটিয়েছেন ভোটগ্রহণ কর্মকর্তারা। ভোটের এ হার ৩০ শতাংশের বেশি হতে পারে বলে প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) জানিয়েছেন। এর আগে দুপুর ১২টা পর্যন্ত ভোটের হার ১৬ দশমিক ৯ শতাংশ ছিল বলে জানিয়েছেন ইসি সচিব। 

ভোটার খরার মধ্যেই বিভিন্ন স্থানে জালভোট, ব্যালট পেপার ছিনতাই, হামলা, গুলিবর্ষণ ও সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। কক্সবাজারের ঈদগাঁও উপজেলায় ছুরিকাঘাতে এক যুবক নিহত হয়েছেন। এ ছাড়া বিভিন্ন স্থানে বিচ্ছিন্ন সংঘর্ষ ও হামলার ঘটনায় সাংবাদিকসহ আহত হয়েছেন ৪৫ জন। এদিকে জালভোট দেওয়া ও জালভোট দিতে সহায়তা করার অভিযোগে প্রিসাইডিং কর্মকর্তাসহ আটক হয়েছেন ৪১ জন। এসব অপরাধে অর্থদণ্ড ও কারাদণ্ড হয়েছে ১৭ জনের। 

ব্রাহ্মণবাড়িয়া 

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার কসবায় উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে ছাইদুর রহমান স্বপন ও আখাউড়ায় মনির হোসেন চেয়ারম্যান পদে নির্বাচিত হয়েছেন। ছাইদুর রহমান আইনমন্ত্রী আনিসুল হকের ফুফাতো ভাই ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি এবং মনির হোসেন আখাউড়া উপজেলা যুবলীগের আহ্বায়ক। 

কসবা উপজেলার ফলাফলে ছাইদুর রহমান স্বপন (কাপ-পিরিচ) প্রতীকে ৮৫ হাজার ৯৩০ ভোট পেয়ে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী কসবা উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও বর্তমান চেয়ারম্যান রাশেদুল কাওসার ভূঁইয়া জীবন (আনারস) প্রতীকে পেয়েছেন ৩৯ হাজার ৯৫৭ ভোট। 

আখাউড়া উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে মো. মনির হোসেন (ঘোড়া) প্রতীকে ২৮ হাজার ৩০৯ ভোট পেয়ে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী উপজেলা পরিষদের বর্তমান ভাইস চেয়ারম্যান ও উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক আহ্বায়ক মুরাদ হোসেন (আনারস) প্রতীকে পেয়েছেন ১৪ হাজার ৫৭৩ ভোট। 

নড়াইল 

নড়াইল সদর উপজেলা নির্বাচনে আজিজুর রহমান ভুইয়া উপজেলা চেয়ারম্যান পদে ৪৫ হাজার ৮৫ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন। তার প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী তোফায়েল মাহামুদ তুফান পেয়েছেন ৪২ হাজার ৩০৬ ভোট। এই উপজেলায় ভোটের হার ৩৭.৪৯ ভাগ। 

লোহাগড়া উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে এ কে এম ফয়জুল হক ৩৯ হাজার ৬৫৬ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন। তার প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী এস এ হান্নান রুনু ভোট পেয়েছেন ২৬ হাজার ৬০০। 

জয়পুরহাট 

জয়পুরহাট সদর উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে হাসানুজ্জামান মিঠু (মোটরসাইকেল মার্কা) এবং পাঁচবিবি উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে সাবেকুন নাহার শিখা (ঘোড়া মার্কা) প্রতীক নিয়ে বেসরকারিভাবে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন।

মাগুরা

মাগুরার মহম্মদপুর উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে অ্যাড. আব্দুল মান্নান চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। তিনি মহম্মদপুর উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি। তিনি ৪৩ হাজার ৯৭৭ ভোট পেয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী মহম্মদপুর উপজেলা আওয়ামী লীগে সহসভাপতি কবিরুজ্জামান কবির পেয়েছেন ৩৩ হাজার ৯৬২। নির্বাচনে দায়িত্বপ্রাপ্ত সহকারী রিটানিং অফিসার ও মহম্মদপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা পলাশ মণ্ডল এ ফলাফল ঘোষণা করেন। 

অন্যদিকে মাগুরার শালিখা উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে অ্যাড. শ্যামল কুমার দে ৩১ হাজার ১৮৯ ভোট পেয়ে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। তিনি শালিখা উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মো. রেজাউল ইসলাম পেয়েছেন ২৬ হাজার ৭৮৪ ভোট। সহকারী রিটার্নিং অফিসার ও শালিখা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা হরেকৃষ্ণ অধিকারী এ ফলাফল ঘোষণা করেন। 

মাদারীপুর 

মাদারীপুরের কালকিনিতে উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে মোটরসাইকেল প্রতীকের প্রার্থী তৌফিকুজ্জামান শাহীন ৩৬ হাজার ১৯০ ভোট পেয়ে বেসরকারিভাবে নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী ঘোড়া প্রতীকের প্রার্থী মো. নুরুজ্জামান সরদার পেয়েছেন ১১ হাজার ৯১৬ ভোট। তৌফিকুজ্জামান শাহীন কালকিনি উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান। 

গোপালগঞ্জ 

গোপালগঞ্জের কাশিয়ানী ও মুকসুদপুর উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে কাশিয়ানী উপজেলায় দোয়াত-কলম প্রতীক নিয়ে বীর মুক্তিযোদ্ধা মো. মোক্তার হোসেন এবং মুকসুদপুর উপজেলা ঘোড়া প্রতীক নিয়ে মো. কাবির মিয়া বেসরকারিভাবে নির্বাচিত হয়েছেন। 

এ ছাড়া কাশিয়ানী উপজেলায় ভাইস চেয়ারম্যান পদে মো. জামিনুর রহমান ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে জিনাত রেহানা খান এবং মুকসুদপুর উপজেলায় ভাইস চেয়ারম্যান পদে শাহারিয়ার কবির ও তানিয়া আক্তার মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে বেসরকারিভাবে নির্বাচিত হয়েছেন। 

ফলাফলে বীর মুক্তিযোদ্ধা মো. মোক্তার হোসেন দোয়াত-কলম প্রতীক নিয়ে ৩২ হাজার ৫৩৫ ভোট পেয়ে বেসরকারিভাবে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী মুন্সি ফররুখ হোসাইন মিন্টু আনারস প্রতীক নিয়ে পেয়েছেন ২৮ হাজার ১১২ ভোট। কাজী নুরুল আমিন মোটরসাইকেল প্রতীক নিয়ে পেয়েছেন ২৫ হাজার ৫৫৭ ভোট। 

মুকসুদপুর উপজেলার ফলাফলে মো. কাবির মিয়া ঘোড়া প্রতীক নিয়ে ৫৪ হাজার ৫৫৪ ভোট পেয়ে বেসরকারিভাবে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। আবুল কাসেম রাজ দোয়াত কলম-প্রতীক নিয়ে পান ২৮ হাজার ৫৪২ ভোট। মো. কাইমুজ্জামান রানা আনারস প্রতীক নিয়ে পান ৩ হাজার ২১৫ ভোট। 

হবিগঞ্জ 

হবিগঞ্জের বাহুবল উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছে আনোয়ার হোসাইন। তিনি দোয়াত-কলম প্রতীকে ১৮ হাজার ৬৬২ ভোট পেয়ে বিজয়ী হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান আব্দুল হাই পেয়েছেন ১২ হাজার ৭৮৪ ভোট। 

মেহেরপুর 

মেহেরপুরের গাংনী উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে পুনরায় বিজয়ী হয়েছেন মেহেরপুর জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এম এ খালেক। ৫ হাজার ৪৩০ ভোটের ব্যবধানে তিনি জয়লাভ করেন। তবে ভাইস চেয়ারম্যান ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে এসেছে নতুন মুখ। 

টাঙ্গাইল 

টাঙ্গাইলের ভূঞাপুর উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে নার্গিস বেগম (দোয়াত-কলম) প্রতীক নিয়ে বেসরকারিভাবে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। তিনি পেয়েছেন ৩০ হাজার ৩৬৪ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী মো. ফিরোজ চৌধুরী (হেলিকপ্টার) প্রতীকে পেয়েছেন ৫ হাজার ৮৩৯ ভোট। 

কালিহাতী উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে বঙ্গবীর কাদের সিদ্দিকীর ভাই এস এ এম সিদ্দিকী (আজাদ সিদ্দিকী) (আনারস) প্রতীক নিয়ে বেসরকারিভাবে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। তিনি পেয়েছেন ৫২ হাজার ৯১০ ভোট। ঘাটাইল উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে মুহাম্মদ আরিফ হোসেন (আনারস) প্রতীক নিয়ে বেসরকারিভাবে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। তিনি পেয়েছেন ৫২ হাজার ৩১৫ ভোট। 

কুমিল্লা 

কুমিল্লার দুটি উপজেলায় কুমিল্লার সদর দক্ষিণ উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে কুমিল্লা মহানগর আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুল হাই বাবলু নির্বাচিত হয়েছেন। অন্যদিকে কুমিল্লার বরুড়া উপজেলায় হামিদ লতিফ ভূঁইয়া কামাল নির্বাচিত হয়েছেন। 

পাবনা 

ষষ্ঠ উপজেলা নির্বাচনের দ্বিতীয় ধাপে পাবনার চাটমোহর, ভাঙ্গুড়া ও ফরিদপুর উপজেলা পরিষদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। চাটমোহর উপজেলায় সাবেক মেয়র ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মির্জা রেজাউল করিম দুলাল (আনারস) ৩৯ হাজার ৩৩৪ ভোট পেয়ে বেসরকারিভাবে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। ভাঙ্গুড়া উপজেলায় ৪৫টি ভোট কেন্দ্রের ফলাফলে স্থানীয় সংসদ সদস্যের ছেলে উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক গোলাম হাসনাইন রাসেল (মোটরসাইকেল) ৩১ হাজার ৫৫৯ ভোট পেয়ে বেসরকারিভাবে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। ফরিদপুর উপজেলায় ৪৫টি ভোটকেন্দ্রের ফলাফলে উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি খলিলুর রহমান সরকার (দোয়াত-কলম) ১২ হাজার ৫৫৫ ভোট পেয়ে বেসরকারিভাবে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। 

চাঁদপুর 

চাঁদপুর সদর, হাজীগঞ্জ ও শাহরাস্তি উপজেলায় পরিষদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়েছে। নির্বাচনে সদর উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছে ঘোড়া প্রতীক নিয়ে মো. হুমায়ুন কবির, হাজীগঞ্জ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে আনারস প্রতীক নিয়ে হেলাল উদ্দিন মিয়াজী ও শাহরাস্তি উপজেলায় ঘোড়া প্রতীক নিয়ে মকবুল হোসেন পাটোয়ারী বেরসকারিভাবে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। হাজীগঞ্জ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে ৮৮টি ভোটকেন্দ্রের মধ্যে মো. হেলাল উদ্দিন ২৬ হাজার ৫৮৮ ভোট পেয়ে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। শাহরাস্তি উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে ৬৫টি ভোটকেন্দ্রের মধ্যে মকবুল হোসেন পাটোয়ারী ৩২ হাজার ৬৭৯ ভোট পেয়ে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন। 

বাগেরহাট 

বাগেরহাটে ফকিরহাট, মোল্লাহাট,ও চিতলমারী উপজেলায় ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়েছে। ফকিরহাট উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে বেসরকারিভাবে নির্বাচিত হয়েছেন শেখ ওহিদুজ্জামান বাবু। চিতলমারী উপজেলার চেয়ারম্যান পদে নির্বাচিত হয়েছেন মো. আলমগীর হোসেন সিদ্দিকী। মোল্লাহাট উপজেলার চেয়ারম্যান পদে নির্বাচিত হয়েছেন বর্তমান উপজেলা চেয়ারম্যান মোহাম্মদ শাহিনুর আলম ছানা।

রাজশাহী

দ্বিতীয় ধাপে রাজশাহীর বাগমারা, দুর্গাপুর ও পুঠিয়া উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়েছে। বাগমারা উপজেলায় বেসরকারিভাবে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন জাকিরুল ইসলাম সান্টু। তিনি ঘোড়া প্রতীকে পেয়েছেন ৪৭ হাজার ৩২২ ভোট। পুঠিয়া উপজেলায় বেসরকারিভাবে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন আবদুস সামাদ মোল্লা। দুর্গাপুর উপজেলায় বেসরকারিভাবে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন শরীফুজ্জামান শরীফ। তিনি মোটরসাইকেল প্রতীকে পেয়েছেন ৪২ হাজার ১১৩ ভোট। 

ভোলা

ভোলা সদর উপজেলায় ভাইস চেয়ারম্যান থেকে উপজেলা চেয়ারম্যান পদে নির্বাচিত হলেন মোহাম্মদ ইউনুছ। তিনি মোটরসাইকেল প্রতীক নিয়ে ৬৭ হাজার ২৭ ভোট পেয়ে বেসরকারিভাবে নির্বাচিত হয়েছেন।

খুলনা

খুলনার ফুলতলা, তেরখাদা ও দিঘলিয়া উপজেলায় সুষ্ঠুভাবে ভোটগ্রহণ সম্পন্ন হয়েছে। এ নির্বাচনে ফুলতলা উপজেলায় চেয়ারম্যান পদে বেসরকারিভাবে পুনরায় নির্বাচিত হয়েছেন উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শেখ আকরাম হোসেন। আনারস প্রতীকে তিনি পেয়েছেন ২১ হাজার ৮২৮ ভোট। তেরখাদা উপজেলা চেয়ারম্যান পদে নতুন মুখ জেলা মৎস্যজীবী লীগের সহসভাপতি আবুল হাসান শেখ বেসরকারিভাবে নির্বাচিত হয়েছেন। আনারস প্রতীকে তিনি পেয়েছেন ২৮ হাজার ১৭৯ ভোট।

এ ছাড়া দিঘলিয়া উপজেলা চেয়ারম্যান পদে বেসরকারিভাবে পুনরায় নির্বাচিত হয়েছেন বর্তমান চেয়ারম্যান জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক শ্রমবিষয়ক সম্পাদক শেখ মারুফুল ইসলাম। আনারস প্রতীকে তিনি পেয়েছেন ৩৪ হাজার ৪২৩ ভোট।

মন্তব্য করুনঃ


সর্বশেষ সংবাদ